x

প্রকাশিত | ৯২ তম মিছিল

মূল্যায়ন অর্থাৎ ইংরেজিতে গালভরে আমরা যাকে বলি ইভ্যালুয়েশন।

মানব জীবনের প্রতিটি স্তরেই এই শব্দটি অবিচ্ছেদ্য এবং তার চলমান প্রক্রিয়া। আমরা জানি পাঠক্রম বা সমাজ প্রবাহিত শিক্ষা দীক্ষার মধ্য দিয়েই প্রতিটি মানুষের মধ্যেই গঠিত হতে থাকে বহুবিদ গুন, মেধা, বোধ বুদ্ধি, ব্যবহার, কর্মদক্ষতা ইত্যাদি। এর সামগ্রিক বিশ্লেষণ বা পর্যালোচনা থেকেই এক মানুষ অপর মানুষের প্রতি যে সিদ্ধান্তে বা বিশ্বাসে উপনীত হয়, তাই মূল্যায়ন।

স্বাভাবিক ভাবে, মানব জীবনে মূল্যায়নের এর প্রভাব অনস্বীকার্য। একে উপহাস, অবহেলা, বিদ্রুপ করা অর্থই - বিপরীত মানুষের ন্যায় নীতি কর্তব্য - কর্ম কে উপেক্ষা করা বা অবমূল্যায়ন করা। যা ভয়ঙ্কর। এবং এটাই ঘটেই চলেছে -

চলুন মিছিলে 🔴

শুক্রবার, ফেব্রুয়ারী ২১, ২০২০

তপশ্রী পাল

sobdermichil | ফেব্রুয়ারী ২১, ২০২০ | | মিছিলে স্বাগত
তপশ্রী পাল
চলো 
একসাথে হাঁটি 

রাজুর সম্বল  কলাই করা ভাঙা থালা
রাজু, দুর্গা ঝাড়ুদারের ছেলে। “ওরা দলিত – ওরা অচ্ছুৎ !”
ইস্কুলে মিড-ডে মিলে, একসাথে বসে খাওয়ার অনুমতি নেই তার
সারি সারি বাচ্চাদের পাতে ডিম ভাত - জুল জুল চোখে দেখে রাজু –
“লোভ দিচ্ছিস !” পিঠে পড়ে নির্মম বেত!
জিভের জলের সঙ্গে চোখের জল মিশে যায় –

বিসর্জনের মিছিল– বিজয়া দশমী ! ঢাকের তালে নাচতে নাচতে চলেছে সবাই
মনসুর ডোমের ছেলে মাসুদ বায়না ধরে “ঠাকুর দেখবো বাবা ! নাচবো একসাথে” –
মাসুদকে কোলে তুলে নাচতে থাকে মনসুর, ঢুকে পড়ে দলে –
হাত পেতে নিতে যায় মিষ্টান্ন প্রসাদ !
“ওরা মোসলমান – ওরা অচ্ছুৎ!” পুরোহিত হাঁক পেড়ে বলে
“ধূর ছাই ! অপবিত্র হল সব, গঙ্গাস্নান ছাড়া মুক্তি নাই !”

উচ্চবর্ণ, নিম্নবর্ণ, আদিবাসী, মুসলিম অথবা দলিত
এত ভেদাভেদে আজ নড়ে গেলো হিন্দুত্বের ভিত!
ভুলে গেলো সব মুখই বাংলা ভাষা বলে
সংবিধান চলে গেলো কালের অতলে।

একবিংশ শতক - বিশ্বায়ন       কোন দ্বার খুলে দেয়?
গোষ্ঠীদ্বন্দ্ব, হিংসা বেড়ে চলে    শ্বাপদের থাবা কেড়ে নেয়
কালবুরগি, গৌরী লঙ্কেশ  প্রতিবাদী কন্ঠস্বর ।
যুক্তি নেই বুদ্ধি নেই         চিন্তা নেই ইচ্ছা নেই
দিনগত পাপক্ষয় শুধু? নীরব দর্শক হয়ে বাঁচা?
প্রতিবাদ অনল জ্বালিয়ে       চলো আজ একসাথে হাঁটি !

Comments
0 Comments

-

সুচিন্তিত মতামত দিন

�� পাঠক পড়ছেন

 

এই ব্লগটি সন্ধান করুন

■ শব্দের মিছিলের সর্বশেষ আপডেট পেতে, ফেসবুক পেজটি লাইক করুন।
সার্বিক অলঙ্করণে : প্রিয়দীপ | আহ্বায়ক : দেবজিত সাহা
Website Published and © by sobdermichil.com

Proudly Hosting by google

Blogger দ্বারা পরিচালিত.