x

প্রকাশিত

​মহাকাল আর করোনাকাল পালতোলা নৌকায় চলেছে এনডেমিক থেকে এপিডেমিক হয়ে প্যানডেমিক বন্দরে। ওদিকে একাডেমিক জেটিতে অপেক্ষমান হাজার পড়ুয়ার ভবিষ্যৎ।​ ​দীর্ঘ সাতমাসের এ যাপন চিত্র মা দুর্গার চালচিত্রে স্থান পাবে কিনা জানি না ! তবে ভুক্তভোগী মাত্রই জানে-

​'চ'য়ে - চালা উড়ে গেছে আমফানে / চ'য়ে - কতদিন হাঁড়ি চড়েনি উনুনে / চ'য়ে - লক্ষ্মী হলো চঞ্চলা / চ'য়ে - ধর্ষিতা চাঁদমনির দেহ,রাতারাতি পুড়িয়ে ফেলা।

​হোম কোয়ারেন্টাইনে থাকা মানুষটি লালমার্কার দিয়ে গোল গোল দাগ দেয় ক্যালেন্ডারের পাতায়, চোদ্দদিন যেন চোদ্দ বছর। হুটার বাজিয়ে শুনশান রাস্তায় ছুটে যায় পুলিশেরগাড়ি, অ্যাম্বুলেন্স আর শববাহী অমর্ত্য রথ...। গঙ্গা দিয়ে বয়ে গেছে অনেকটা জল, 'পতিত পাবনী গঙ্গে' হয়েছেন অচ্ছুৎ!

এ কোন সময়ের মধ্যে দিয়ে চলেছি আমরা?

ছবিতে স্পর্শ করুন

শব্দের মিছিল

অতিথি সম্পাদনায়

সমীরণ চক্রবর্তী

সোমবার, এপ্রিল ১৫, ২০১৯

শুভজিৎ বোস

sobdermichil | এপ্রিল ১৫, ২০১৯ | | মাত্র সময় লাগবে লেখাটি পড়তে।
  শুভজিৎ বোস
ভয়-ঘর

দ্বেষের রক্তকল্লোলে ভেসে ওঠে শোক
ভেসে ওঠে জীবনের গন্ধমাখা চুয়াল্লিশেরবসন্তযাপন।
আমি ভয়ে মরি ! এ ভয়ের হিংসাগর্ভে জন্ম নেয় উৎপীড়নের শ্লোক !
হিসেবের ভয়ঘরে যন্ত্রণা মোছে সমাজকোষ।হিংসাভোলানো দ্বেষ আমায় ক্লান্ত করে,
রক্তশিরার মজ্জা শুকিয়ে মরে অবাধ্য প্রেম !
সিঁদূরে ললাট ধুয়ে যায় রক্ত বিসর্জনে।
নমঃব্রহ্মা,নমঃবিষ্ণু,নমঃমহেশ্বরের মন্ত্র পোড়ে বারুদ বিস্ফোরণে,
ধনী-গরীবের আকাঙ্খা খুনে মাতোয়ারা হয় জীবন-যৌবন,
রক্তসিঁড়ির দ্বেষ-প্রস্তাবে মৃত্যু হয় ইহলোকের।
পিশাচ মৃতস্বপ্নের ফেরিওয়ালা হয়ে মৃত্যু বিক্রি করে হিংসাবাজারে,
জীবনের শেষ প্রস্তাবে আমি আবার জেগে উঠি !
দেখি জীবন-জলের অকালে রক্ত পান করছে অর্ধ-মানব,
আমি ভীত হয়ে ঈশ্বর সেবায় মাতি।
   
               

Comments
0 Comments
 

এই ব্লগটি সন্ধান করুন

Support : FACEBOOK PAGE.

সার্বিক অলঙ্করণে : প্রিয়দীপ ,আহ্বায়ক : দেবজিত সাহা

Website Published and © by sobdermichil.com

Proudly Hosting by google

Blogger দ্বারা পরিচালিত.