x

প্রকাশিত | ৯৪ তম মিছিল

কান টানলেই যেমন মাথা আসে, তেমন ভাষার প্রসঙ্গ এলেই মানুষের মুখের ভাষার দৈনন্দিন ব্যবহারের কথাও মনে পড়ে যায়, বিশেষত আজকের দিনে। ভাষা দিবস মানেই শুধু মাতৃভাষা নিয়ে আবেগবিহ্বল হয়ে থাকার দিন বুঝি আজ আর নেই!

কেননা সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রে যাঁরা মাথায় বসে আছেন, বিশেষত যাঁরা রাজনীতির পৃষ্ঠপোষকতায় ক্ষমতাভােগী এবং লােভী, তাঁদের মুখের ভাষা এবং তার প্রয়ােগ আজ ঠিক কতটা শিক্ষণীয় এবং গ্রহণীয় সেটা শুধু ভাবার নয়, রীতিমতো শঙ্কার এবং সঙ্কটের।

সবই কি তবে মহৎ ভাবনা, অনুপ্রেরণার জোয়ার? নাকি রাজনৈতিক কারবারিরা 'সুভাষিত' শ্রবণাতীত বয়ানে নিজেদের অক্ষমতার মদমত্ত প্রকাশ করছেন? সাধারণ ছাপােষা মানুষ বিস্ফারিত চিত্তে এই ভাষাসন্ত্রাস,এই ভাষাধর্ষণ দেখতে শুনতে ক্লান্ত। এর থেকে উত্তরণের উপায় এখনও অবধি কোনাে ভাষা দিবস দেখাতে পারেনি। এবারের ভাষা দিবসের কাছেও কি সেই উপায় আছে? নাকি এই খেলা হবে, চলবে ... মেধাহীন গাধাদের দৌলতে?

চলুন মিছিলে 🔴

বৃহস্পতিবার, আগস্ট ৩১, ২০১৭

অভিজিৎ পাল

sobdermichil | আগস্ট ৩১, ২০১৭ | | মিছিলে স্বাগত
অভিজিৎ পাল
 অন্তর্যামী 

– ১

তোমার পদ্মপাদে মাথা রাখি। আনত হই বহুবার। একটা দৃঢ়চেতা আত্মবিশ্বাস জাগে। অহংয়ের ভার মুছে আসে। ক্ষতে প্রলেপ পড়ে, যে ক্ষত একটু একটু করে আঘাতে ঘর বেঁধেছিল। নিরাময় হয়ে উঠি। তুমি হাসতে থাকো। নির্মেদ হাসি। বাক্যমনাতীত আনন্দঘন স্নেহাতুরা হাসি।  অমলিন প্রেক্ষাপট জমে ওঠে। সন্ধ্যারতির ছন্দে সেজে ওঠে গোটা বেলুড় মঠ। আত্মিক অনুভবগম্যতায় কণ্ঠে ধ্বনি ওঠে। ভাবমোহিত অপার্থিব কোরাসে আমার একক সত্তা তোমার স্পন্দনে মিশে যায়...

- ২

কোনো এক অজানা সতর্কতায় হাত বাড়িয়ে ধরে থাকো আমার হাত। আমিও নির্ভরতা মাখিয়ে রাখি সেই স্পর্শের আদরে। স্পর্শের কোনো বাচিক ভাষা নেই। মায়াময়ী অবয়ব দেখি সুনন্দ অনিন্দ্যসুন্দর। স্নেহ দিয়ে আঁকা দু'চোখ। করুণাঘন। আমার নাগরিক অভাব মিটে আসে। নিরন্তর একটা তৃপ্তির ঘুম জমে আসে ক্যানভাসে। ক্লান্ত শরীর মেলে ধরি পদপল্লবে। শান্ত হই। কোল পেতে বসে থাকা অবয়ব দেখি। আমার ছেলেবেলার কোনো এক স্মৃতিকে আঁকড়ে শুধু মায়ের কথা মনে পড়ে...

- ৩

উপনিষদে প্রদর্শিত আত্মজ্ঞান জেগে ওঠে। যে সব অনাগত ভাবনারা পায়ে শিকল বেঁধে বসেছিল, তারা সমস্বরে মুষ্টি পাকিয়ে নেমে আসে রাজপথে। সমদ্বিপদ মেলাই। হেঁটে চলি ভালোবাসার দাগ আঁকড়ে। মহাজাগতিক বিভার আলো জমতে থাকে আমার আজানুলম্বিত শ্বেত ক্যানভাসময়। তত্ত্ববিশ্ব ভাবতে বসি বিশ্বায়ন উত্তর জগতের বুকে। ক্ষোভে ব্যর্থতায় অবাণিজ্যিক পণ্য হয়ে উঠতে চায় আমার মেধামঞ্জরী। হে অন্তর্যামী, তোমার অমিত হাস্যকলায় জেগে উঠুক এবার ভোরের গন্ধ। আমার অনতিক্রান্ত জীবনের পাঠক্রমে নতুন অধ্যায়ের প্রাথমিক পাঠ শুরু হোক...


Comments
0 Comments

-

সুচিন্তিত মতামত দিন

পাঠক পড়ছেন

 

এই ব্লগটি সন্ধান করুন

■ আপডেট পেতে,পেজটি লাইক করুন।
সার্বিক অলঙ্করণে : প্রিয়দীপ | আহ্বায়ক : দেবজিত সাহা
Website Published and © by sobdermichil.com

Proudly Hosting by google

Blogger দ্বারা পরিচালিত.