x

প্রকাশিত | ৯২ তম মিছিল

মূল্যায়ন অর্থাৎ ইংরেজিতে গালভরে আমরা যাকে বলি ইভ্যালুয়েশন।

মানব জীবনের প্রতিটি স্তরেই এই শব্দটি অবিচ্ছেদ্য এবং তার চলমান প্রক্রিয়া। আমরা জানি পাঠক্রম বা সমাজ প্রবাহিত শিক্ষা দীক্ষার মধ্য দিয়েই প্রতিটি মানুষের মধ্যেই গঠিত হতে থাকে বহুবিদ গুন, মেধা, বোধ বুদ্ধি, ব্যবহার, কর্মদক্ষতা ইত্যাদি। এর সামগ্রিক বিশ্লেষণ বা পর্যালোচনা থেকেই এক মানুষ অপর মানুষের প্রতি যে সিদ্ধান্তে বা বিশ্বাসে উপনীত হয়, তাই মূল্যায়ন।

স্বাভাবিক ভাবে, মানব জীবনে মূল্যায়নের এর প্রভাব অনস্বীকার্য। একে উপহাস, অবহেলা, বিদ্রুপ করা অর্থই - বিপরীত মানুষের ন্যায় নীতি কর্তব্য - কর্ম কে উপেক্ষা করা বা অবমূল্যায়ন করা। যা ভয়ঙ্কর। এবং এটাই ঘটেই চলেছে -

চলুন মিছিলে 🔴

শুক্রবার, মে ২৬, ২০১৭

রহিমা খাতুন

sobdermichil | মে ২৬, ২০১৭ | | মিছিলে স্বাগত
রহিমা খাতুন
 নজরুল তুমি 

বাবা বললেন, তুমি গেছো আটাত্তরে
ওপারের দেশে।
আমি তো অবাক!
আর বছর দশেক আগে যদি আসতাম,
তোমায় পেতাম -
আকাশে, বাতাসে,সবুজে শ্যামলে,
হলেই বা তুমি পড়শী দেশের কবি,
জন্ম তো আমার মায়ের কোলেই,
যার নাম চুরুলিয়া।

তোমাকে কত সাধি,
নত শিরে জানাই, আমার এক বিশ্ব হিয়েময়
শ্রদ্ধা আর স্নেহাশ্রিত আবেগ।
যদি একবার দেখতে পেতাম -
মনের গহীন কোণে,
তোমার মনুষাগ্নির একটা স্ফুলিঙ্গ নিশ্চিয় আসতো সবেগে,
নিজেকে মানুষ গড়ার মন্ত্র পেতাম,
তুমি যে দুঃখুমিঞা।

যখন তুমি গান ধরতে হঠাৎ,
সাদা জনমানস হয়ে উঠতো;
রঙিন,সুন্দর, পবিত্র,
আর আনন্দ সাজিয়ে দিত মেহেফিল।
মানবতার আলোক ছড়াতো দিকবিদিক,
কেমনে ধরতে অমন তান?
কেমনে ডাকতে তাল আর লয়কে?
আজ শুনতে চাই প্রাণ-পিয়া।।

কি দেখেছিলে সেদিন তুমি?
বুলবুলকে দেখতে গিয়ে,
সব থেমে গেল,
থমকে গেল স্বর,
তুমি নিলে মৌনতা,
তোমা ভক্তদের দিল শূন্যতা।
যদি একদিন ফিরে আসো তা বলতে,
কত শত প্রাণ, নব প্রাণ ফিরে পাবে,
যে বীণার তরে তান তুলেছিলে,
ফের হবে নব নব,
সব ঘুঁনেরা হবে সমাধিস্থ,
হবে সুরের ঐক্যতান, সব সুন্দরে,
তোমাতে মহিয়া।


Comments
0 Comments

-

সুচিন্তিত মতামত দিন

�� পাঠক পড়ছেন

 

এই ব্লগটি সন্ধান করুন

■ শব্দের মিছিলের সর্বশেষ আপডেট পেতে, ফেসবুক পেজটি লাইক করুন।
সার্বিক অলঙ্করণে : প্রিয়দীপ | আহ্বায়ক : দেবজিত সাহা
Website Published and © by sobdermichil.com

Proudly Hosting by google

Blogger দ্বারা পরিচালিত.