x

প্রকাশিত | ৯৪ তম মিছিল

কান টানলেই যেমন মাথা আসে, তেমন ভাষার প্রসঙ্গ এলেই মানুষের মুখের ভাষার দৈনন্দিন ব্যবহারের কথাও মনে পড়ে যায়, বিশেষত আজকের দিনে। ভাষা দিবস মানেই শুধু মাতৃভাষা নিয়ে আবেগবিহ্বল হয়ে থাকার দিন বুঝি আজ আর নেই!

কেননা সমাজের বিভিন্ন ক্ষেত্রে যাঁরা মাথায় বসে আছেন, বিশেষত যাঁরা রাজনীতির পৃষ্ঠপোষকতায় ক্ষমতাভােগী এবং লােভী, তাঁদের মুখের ভাষা এবং তার প্রয়ােগ আজ ঠিক কতটা শিক্ষণীয় এবং গ্রহণীয় সেটা শুধু ভাবার নয়, রীতিমতো শঙ্কার এবং সঙ্কটের।

সবই কি তবে মহৎ ভাবনা, অনুপ্রেরণার জোয়ার? নাকি রাজনৈতিক কারবারিরা 'সুভাষিত' শ্রবণাতীত বয়ানে নিজেদের অক্ষমতার মদমত্ত প্রকাশ করছেন? সাধারণ ছাপােষা মানুষ বিস্ফারিত চিত্তে এই ভাষাসন্ত্রাস,এই ভাষাধর্ষণ দেখতে শুনতে ক্লান্ত। এর থেকে উত্তরণের উপায় এখনও অবধি কোনাে ভাষা দিবস দেখাতে পারেনি। এবারের ভাষা দিবসের কাছেও কি সেই উপায় আছে? নাকি এই খেলা হবে, চলবে ... মেধাহীন গাধাদের দৌলতে?

চলুন মিছিলে 🔴

শুক্রবার, নভেম্বর ২৫, ২০১৬

জয়িতা দে সরকার

sobdermichil | নভেম্বর ২৫, ২০১৬ | | মিছিলে স্বাগত
রূপসী হেঁসেল


আমি জয়িতা, শব্দের মিছিলের এই সংখ্যায় হাজির করলাম মাছের তিন রকম পদ। চেনাজানা এই মাছের রেসিপিগুলো আমাদের শিখিয়েছে বর্ধমানের একজন ছোট বন্ধু। যে আমাদের রূপসী হেঁসেলের নিয়মিত সদস্যা। মীনাক্ষী পড়ালেখার পাশাপাশি নানান কাজেই উদ্যমী। যেমন, রান্না শেখা, রান্নাঘরে মাকে সাহায্য করা, নতুন কিছু করতে চাই, চাকরি হোক বা ব্যবসা করার ইচ্ছা ওর অন্যতম সখ বলা যেতে পারে। লেখাপড়া শেষ করে বাবা-মায়ের পাশে দাঁড়ানোই ওর প্রধান লক্ষ্য। ভালোবাসে গল্প, কবিতা পড়তে, গান শুনতে, হাসি খুশিতে জীবনকে উপভোগ করতে ভালোবাসে মীনাক্ষী। নিজের মায়ের থেকে রান্না শিখে ও জানিয়েছে এই মাছের রেসিপিগুলো।

অনেক ধন্যবাদ আমাদের এই নতুন উৎসাহী সাথিটিকে শব্দের মিছিলের রূপসী হেঁসেল বিভাগের পক্ষথেকে ।  চলুন - এবার এক এক করে শিখে ফেলা যাক -

ইলিশ মাছের সর্ষের ঝাল :-
উপকরণ :-ইলিশ মাছ ৬ টা,সরষে বাঁটা এক কাপ (জল দিয়ে ভিজিয়ে রাখা),কাঁচা লঙ্কা ৬টা ,পাঁচ ফোড়ন আধ চামচ,শুকনো লঙ্কা ১ টা ,নুন পরিমাণ মতো।

প্রণালী :-প্রথমে ইলিশ মাছ ভাল ভাবে ভেজে নিতে হবে,তারপর সরষের তেলে শুকনো লঙ্কা পাঁচ ফোড়ন ফোড়ন দিয়ে তাতে সরষে বাঁটার উপরের জল দিয়ে দিতে হবে,আর ওতে পরিমাণ মতো নুন দিতে হবে,ঝাল টা ফুটে এলে মাছ গুলো দিয়ে দিতে হবে,মাখামাখা হয়ে এলে ওতে কাঁচা লঙ্কা ও কাঁচা তেল দিয়ে নামাতে হবে।


ইলিশ মাছের সর্ষের ঝাল



লাউ চিংড়ি-

উপকরণ:- চিংড়ী মাছ ভাজা,লাউ মাঝারি সাইজের,নুন ও চিনি আন্দাজ মতো,শুক্ন লঙ্কা,তেজ পাতা,ঘী ও গরম মশলা।

প্রণালী :- করাই এ তেল দিয়ে মাছ গুলো ভেজে নিতে হবে,এবার ওতে তেজ পাতা ,জিরা ফোড়ন দিয়ে কুচনো লাউ একটু কষে নিতে হবে,তারপর ওতে আদা ,টমেটো ধনে জিরা বাঁটা দিয়ে আরো একটু কষতে হবে,এরপর ওতে নুন চিনি দিতে হবে,আর সামান্য জল দিয়ে ওতে ভাজা চিংড়ী দিয়ে চাপা দিতে হবে,নামানোর সময় ঘি ও গরম মশলা দিয়ে নামাতে হবে।


লাউ চিংড়ি


"রুই পোস্ত"

উপকরণ :-

১.রুই মাছ,
২.কাঁচা পেঁয়াজ বড় সাইজের একটা কুচি করা 
৩.কাঁচা লঙ্কা চারটি 
৪.শুকনো লঙ্কা একটি 
৫.পাঁচফোড়ন হাফ চামচ 
৬.পোস্ত বাঁটা এক কাপ 
৭.টমেটো বাঁটা একটা 
৮.নুন চিনি ,সরষের তেল।

প্রণালী:-প্রথমে ধোয়া নুন হলুদ মাখানো মাছ গুলো ভাল ভাবে ভেজে নিতে হবে, তারপর তেলে শুকনো লঙ্কা ও পাঁচ ফোড়ন ফোড়ন দিতে হবে , কুচানো পেঁয়াজগুলো তেলে ছেড়ে দিয়ে ভাল করে ভেজে নিতে হবে , পেঁয়াজ ভাজা হয়ে গেলে ওতে টমেটো বাঁটা ও কাঁচা লঙ্কা কুচি দিয়ে ভাল ভাবে কষতে হবে , সুন্দর গন্ধ বেরিয়ে এলে নুন ও চিনি দিয়ে নাড়তে হবে ,তারপর ওতে সামান্য জল ঢেলে মাছ গুলো চেড়ে দিতে হবে,শেষে ওতে পোস্ত বাঁটা দিয়ে ফুটতে দিতে হবে ,জল টেনে এলে কাঁচা সরষের তেল ছড়িয়ে নামলেই রেডী "রুই পোস্ত"।


রুই পোস্ত









Comments
0 Comments

-

সুচিন্তিত মতামত দিন

পাঠক পড়ছেন

 

এই ব্লগটি সন্ধান করুন

■ আপডেট পেতে,পেজটি লাইক করুন।
সার্বিক অলঙ্করণে : প্রিয়দীপ | আহ্বায়ক : দেবজিত সাহা
Website Published and © by sobdermichil.com

Proudly Hosting by google

Blogger দ্বারা পরিচালিত.